Note: Now you can download articles as PDF format
  • Sad

বৃষ্টিকথা

  • হরিৎ বন্দ্যোপাধ্যায়
  • June 29, 2020
  • 68 বার পড়া হয়েছে

Sorry! PDF is not available for this article!


সাজানো ছিল ঘর,
সাজানো ছিল উঠোন বারান্দা।
চোখের ওপর স্পষ্ট ছিল অযুত আলোকমালা,
এসবই ছিল জলের উঠোন।
বিন্দু বিন্দু পরিশ্রমের সাজানো ঘরদোর,
বৃষ্টি এলো হঠাৎ জোরে।
মাখিয়ে দিল রঙ,
এলোমেলো করে দিল সাজানো ক্যানভাস।

তুমি তো এক মহাশিল্পী,
স্রোতের ভেতর সকল মানুষ জানে।
নিজের রঙ নিজের মতো করে,
ছড়িয়ে দিলে জলের শরীর জুড়ে।
কোথায় কখন বাড়িয়েছিল সম্ভাবনার মুখ,
দূরের থেকে আরও দূরে।
ঝরার আগে গভীর প্রদেশ বাড়িয়েছিল হাত,
তোমার তো হাত বন্ধু হয়ে দাঁড়িয়ে থাকে চোখে।
এইভাবেই তো যৌথ কথার স্বগত সংলাপ,
জলের ভেতর গড়িয়েছিল বৃষ্টি রোদের সুরে।

জলের ওপর জুটিয়ে নিলে ইচ্ছেমতো পাখি,
জলের ওপর ভাসছে তারা তোমারই প্রশ্রয়ে।
আঁকছে তারা যেমন খুশি আলোর কথা দিয়ে,

সাজানো ছিল জলের শরীর নিজের কক্ষপথে,
বাড়িয়ে দিলে কতো যে হাত জলের পথ ধরে।
বুঝিয়ে দিলে, জলের কথা জলটুকু নয় শুধু,
জলের শরীর ভিজবে শুধু বৃষ্টিকথার সুরে।



পরিচিতি:

হরিৎ বন্দ্যোপাধ্যায় জন্ম ২ জানুয়ারি ভারতবর্ষের পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের হুগলী জেলার ধনিয়াখালি গ্রামে। লেখালিখির শুরু খুব ছোটবেলা থেকেই। পেশায় গৃহশিক্ষক হলেও সাহিত্যই চব্বিশ ঘণ্টার ধ্যানজ্ঞান। প্রকাশিত গ্রন্থ -- তুমি অনন্ত জলধি (কবিতা) বিমূর্ততার অনন্ত প্রবাহে (কবিতা সংক্রান্ত গদ্য) দু এক পশলা মান্না (ছড়া) চার ছক্কায় শচিন (ছড়া) সম্পাদিত পত্রিকা : ছায়াবৃত্ত কাটুম কুটুম আমার ঠিকানা : হরিৎ বন্দ্যোপাধ্যায় ময়নাডাঙা ( আশ্রয় অ্যাপার্টমেন্ট ) পোঃ --- চুঁচুড়া. আর. এস. জেলা --- হুগলী পিন --- ৭১২১০২ পশ্চিমবঙ্গ ভারতবর্ষ
শেয়ার করুনঃ